আজ জাতীয় প্রযুক্তি দিবস! সমস্ত বিজ্ঞানীকে স্যালুট জানালেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী

আজ ভারতে পালিত হচ্ছে ২২ তম জাতীয় প্রযুক্তি দিবস। ১৯৯৮ সালে ১১ ই মে, ঠিক এই দিনই তৎকালীন প্রধানমন্ত্রী অটল বিহারি বাজপেয়ি রাজস্থানের পোখরানে সফলভাবে ভূগর্ভস্থ পারমাণবিক পরীক্ষা করেছিলেন। সেই দিনকে স্মরণ করেই আজও ভারতবাসী ১১ ই মে জাতীয় প্রযুক্তি দিবস পালন করে।

জাতীয় প্রযুক্তি দিবস উপলক্ষে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী দেশবাসীকে শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানিয়েছেন এবং তিনি সমস্ত বিজ্ঞানীকে স্যালুট জানিয়েছেন। তিনি তার টুইটে বলেছেন, ‘জাতীয় প্রযুক্তি দিবসে, আমাদের জাতি সালাম জানায় সেই তাদেরকে যারা অন্যের জীবনে ইতিবাচক পার্থক্য আনতে প্রযুক্তি ব্যবহার করছে। ১৯৯৮ সালের এই দিনে আমরা আমাদের বিজ্ঞানীদের অসাধারণ কৃতিত্বের কথা স্মরণ করি। এটি ছিল ভারতের ইতিহাসের এক যুগান্তকারী মুহূর্ত।’

এছাড়াও পোখরান পারমাণবিক পরীক্ষা পরিচালনার জন্য তৎকালীন প্রধানমন্ত্রী অটল বিহারী বাজপেযয়ির কথাও তিনি স্মরণ করেছেন। আসুন আমরা জেনে নিই ন্যাশনাল টেকনোলজি ডে সম্পর্কে বেশকিছু অজানা কথা।

১ . ১১ ই মে, ১৯৯৮ সালে ভারত রাজস্থানের পোখরানে একটি সেনা পরীক্ষা পরিসরে শক্তি -১ পারমাণবিক ক্ষেপণাস্ত্র সফলভাবে নিক্ষেপ করেছিল। দুদিন পরে ভারত আরও দুটি পরমাণু পরীক্ষা চালিয়েছিল। এরপরে ভারত পরমাণু শক্তিধর দেশগুলির এলিট ক্লাবে যোগদান করে।

২ . দিনটি আরো পরিচিত দেশীয়ভাবে তৈরী হওয়া হংস -৩ বিমানের জন্য। এই বিমানকে যৌথ ভাবে তৈরী করে ন্যাশনাল এরোস্পেস ল্যাবরেটরিজ (এনএএল) এবং কাউন্সিল ফর সাইন্টিফিক এন্ড ইন্ডাস্ট্রিয়াল রিসার্চ (সিএসআইআর) ল্যাব।

৩ . একই দিনে, অর্থাৎ ১১ ই মে, ১৯৮৮ সালে প্রতিরক্ষা গবেষণা উন্নয়ন সংস্থা (ডিআরডিও) সারফেস টু এয়ার ত্রিশুল মিসাইলের চূড়ান্ত পরীক্ষার কাজ সম্পন্ন করে।

৪ . ভারতের প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী অটল বিহারী বাজপেয়ি এই দিনটি স্মরণ করে রাখতে চেয়েছিলেন ভারতীয় বিজ্ঞানীদের অবদানকে উদযাপন করার জন্য।

গেম খেলতে এখানে ক্লিক করুন

টেকগাপের মেম্বাররা ও সদ্য যোগ দেওয়া লেখকরা এই প্রোফাইলের মাধ্যমে টেকনোলজির সমস্ত রকম খুঁটিনাটি আপনাদের সামনে আনে।