বৃষ্টির দিনে উত্তাপ ছড়িয়ে Tata লঞ্চ করল দুর্দান্ত বৈদ্যুতিক গাড়ি, 437 কিমি রেঞ্জ, এক ঘন্টায় 80% চার্জ হবে

tata-nexon-ev-max-price-rs-17-74-lakh-range-437-km-launched-features-charging-time-battery-power

বৈদ্যুতিক গাড়ির বাজারে নিজের একচ্ছত্র কায়েম বজায় রাখতে ম্যাক্স ভার্সনে লঞ্চ হল টাটা নেক্সন ইভি। যার পুরো নাম – Tata Nexon EV Max। আগের তুলনায় মিলবে আরও অভিনব ফিচার। আবার বড় ব্যাটারি থাকার কারণে পাওয়া যাবে অধিক রেঞ্জ। এতদিন এদেশের বাজারে সর্বাধিক বিক্রিত বৈদ্যুতিক গাড়ি Tata Nexon EV থেকে ৩১২ কিমি রেঞ্জ পাওয়া যায় বলে দাবি সংস্থার। কিন্তু আপডেটেড মডেলটি আরও বেশি দূরত্ব নিশ্চিন্তে সফর করার সুখ দেবে গ্রাহকদের। ইতিমধ্যেই গাড়িটির বুকিং নেওয়া শুরু করেছে টাটা। এদিকে প্রথম ব্যাচের নেক্সন ইভি ম্যাক্স সমগ্র ভারতের ডিলারদের কাছে পৌঁছে দেওয়া হচ্ছে। আসুন Tata Nexon EV Max-কে পুঙ্খানুপুঙ্খ ভাবে জেনে নেওয়া যাক।

টাটা নেক্সন ইভি ম্যাক্স ফিচার্স (Tata Nexon EV Max Features)

টাটা নেক্সন ইভি ম্যাক্স দু’টি ভ্যারিয়েন্টে হাজির হয়েছে – XZ+ ও XZ+ Lux। ডেটোনো গ্রে, প্রিস্টিন হোয়াইট, এবং এবং ইনটেসি-টিল রঙের মধ্যে বেছে নেওয়া যাবে গাড়িটি। উল্লেখযোগ্য ফিচারগুলির প্রসঙ্গে আসলে প্রথমেই ভেন্টিলেটেড ফ্রন্ট সিট, ওয়্যারলেস ফোন চার্জার, এয়ার পিউরিফায়ার, স্মার্ট ওয়াচ ইন্টিগ্রেশন, ক্রুজ কন্ট্রোল, প্রতিটি চাকায় ডিস্ক ব্রেক, ডুয়াল এয়ারব্যাগ, এমার্জেন্সি স্টপ লাইট, এবং মাল্টি মোড রিজেনারেশন মোডের কথা বলতে হয়।

টাটা নেক্সন ইভি ম্যাক্স ব্যাটারি, রেঞ্জ, মোটর ও দাম (Tata Nexon EV Max Battery, Range & Motor)

৪০.৫ কিলোওয়াট আওয়ার ক্ষমতাসম্পন্ন ব্যাটারি সহ এসেছে নেক্সন ইভি ম্যাক্স। যেখানে গাড়িটির অনুজ মডেলে আছে ৩০.২ কিলোওয়াট আওয়ার ব্যাটারি। ব্যাটারির ক্ষমতায় টাটার নতুন ইলেকট্রিক গাড়ি Hyundai Kona Electric-কেও ছাপিয়ে গিয়েছে, যাতে উপস্থিত একটি ৩৯.২ কিলোওয়াট আওয়ার ব্যাটারি।

বড় ব্যাটারির নেক্সন ইভি ম্যাক্স ARAI-এর থেকে ৪৩৭ কিমি রেঞ্জের শংসাপত্র আদায় করতে সক্ষম হয়েছে। তবে বলাই বাহুল্য যে নেক্সন ইভি’র মতো ম্যাক্স ভার্সনের বাস্তবিক রেঞ্জ কম হবে। প্রথম মডেলটির বাস্তবে রেঞ্জ মেলে ২০০ কিলোমিটারের কাছাকাছি। ম্যাক্স মডেলটি থেকে ৩০০ কিলোমিটারের আশেপাশে রেঞ্জ পাওয়া যাবে। অন্যদিকে নেক্সন ইভি’র তুলনায় আপডেটেড মডেলটির ওজন ১০০ কেজি বেশি এবং মূল্য ১.৭৯ লক্ষ টাকা অধিক।

তবে বড় ব্যাটারি থাকার কারণে নেক্সন ইভি ম্যাক্সের বুট স্পেস কম মেলার বিষয়ে যে গুজব শোনা যাচ্ছিল তাতে জল ঢেলে দিয়ে টাটা জানিয়েছে, বড় ব্যাটারি থাকা সত্ত্বেও নেক্সন ইভি ম্যাক্সের বুট স্পেস আগের মডেলটির মতোই ৩৫০ লিটার মিলবে। আবার অনেকেই মনে করছেন ৪৩৭ কিমি রেঞ্জের নেক্সন ইভি ম্যাক্স এবারে MG ZS EV ও Hyundai Kona গোত্রীয় গাড়িগুলির সাশ্রয়ী মডেল হয়ে উঠবে।

টাটা নেক্সন ইভি ম্যাক্সের ইলেকট্রিক মোটরটি থেকে ১৪৩ এইচপি শক্তি এবং ২৫০ এনএম টর্ক উৎপন্ন হবে। যা ছোট মডেলের তুলনায় ১৪ এইচপি এবং ৫ এনএম আউটপুট বেশি। অন্যদিকে প্রতিপক্ষ MG ZS EV ও Hyundai Kona Electric থেকে যথাক্রমে ১৭৭ পিএস এবং ২৮০ এনএম ও ১৩৬ পিএস ও ৩৯৫ এনএম আউটপুট পাওয়া যায়। অন্য দিকে নেক্সন ইভি ম্যাক্সের স্ট্যান্ডার্ড মডেলে উপলব্ধ একটি ৩.৩ কিলোওয়াট আওয়ার পোর্টেবল চার্জার। যা দিয়ে ব্যাটারিটি সম্পূর্ণ চার্জ হতে ১৫-১৬ ঘন্টা সময় লাগবে। তবে অতিরিক্ত মূল্যে কেনা যাবে ৭.২ কিলোওয়াট আওয়ার পোর্টেবল চার্জার, যা দিয়ে ব্যাটারিটি ৫-৬ ঘন্টায় সম্পূর্ণ চার্জ হয়ে যাবে। আবার ব্যাটারি ৫০ কিলোওয়াট ডিসি ফাস্ট চার্জিং সাপোর্ট করে৷ ফলে ৫৬ মিনিটে ৮০ শতাংশ চার্জ হবে এটি।

টাটা নেক্সন ইভি ম্যাক্স দাম (Tata Nexon EV Max Price)

টাটা নেক্সন ইভি ম্যাক্সের দাম ১৭.৭৪ লক্ষ টাকা (এক্স-শোরুম) থেকে শুরু। এটি ৩.৩ কিলোওয়াট চার্জিং অপশনযুক্ত XZ+ মডেলের দাম৷ আর ৭.২ কিলোওয়াট এসি ফাস্ট চার্জিং-সহ ZX+ ও ZX+ Lux ভ্যারিয়েন্টের মূল্য যথাক্রমে ১৮.২৪ লক্ষ টাকা ও ১৯.২৪ লক্ষ টাকা। আর সবশেষে ৩.৩ কিলোওয়াট চার্জার-সহ ZX Lux+ এর দাম ১৮.৭৪ লক্ষ টাকা (এক্স-শোরুম)। নেক্সন ইভি ম্যাক্সের উপরে ৮ বছর / ১,৬০,০০০ কিলোমিটারের ওয়ারেন্টি দেওয়ার ঘোষণা করেছে টাটা‌।

গেম খেলতে এখানে ক্লিক করুন

শুভদীপ টেকগাপে অটোকার বিষয়ক লেখালিখি করে। এর আগে বিভিন্ন পোর্টালের সাথে যুক্ত থাকলেও, অটোকার নিয়ে টেকগাপে তার হাতেখড়ি। দিনকে দিন সে টেকগাপের গুরুত্বপূর্ণ সদস্য হয়ে উঠেছে।