Samsung Galaxy Z Fold 3 ফোনে থাকবে স্ন্যাপড্রাগন ৮৮৮ প্রসেসর, দেখা গেল Geekbench-এ

বিভিন্ন সূত্র থেকে খবর আসছে যে, আগস্টের ৩ তারিখে একটি মেগা আনপ্যাকড ইভেন্টের আয়োজন করে Samsung তাদের পরবর্তী প্রজন্মের ফোল্ডেবল ফোন Galaxy Z Fold 3 ও Galaxy Z Flip 3 লঞ্চ করতে পারে। সেইসঙ্গে Galaxy Watch 4 সিরিজের স্মার্টওয়াচের উপর থেকে পর্দা সরিয়ে স্যামসাং ইভেন্টের জৌলুস দ্বিগুণ বাড়াবে বলেও জল্পনা শোনা যাচ্ছে। পূর্বসূরীর চেয়ে Galaxy Z Fold 3 একাধিক ক্ষেত্রে উন্নতিসাধন করবে বলে আশা করা হচ্ছে। এ সব অনুমানের মাঝেই পারফরম্যান্স যাচাই করার লক্ষ্যে Samsung Galaxy Z Fold 3 বেঞ্চমার্কিং প্ল্যাটফর্ম Geekbench-এ হাজির হয়েছে।

Samsung Galaxy Z Fold 3 স্মার্টফোনের Geekbench লিস্টিং

SM-F926U মডেল নম্বর সহ গিকবেঞ্চে লিস্টেড হওয়া স্যামসাং ডিভাইসটিকে গ্যালাক্সি জেড ফোল্ড ৩ হিসেবে চিহ্নিত করা হয়েছে। ফোনটির প্রসেসরের কোডনাম ‘lahina’। প্রসেসরটিতে ২.৮৪ গিগাহার্টজ ক্লক স্পিডের চারটি কোর, তিনটি ২.৪২ গিগাহার্টজ কোর, এবং দু’টি ২.৮৪ গিগাহার্টজ কোর রয়েছে। কোডনাম এবং স্পেসিফিকেশন বিচার করে বলা যায়, এটি স্ন্যাপড্রাগন ৮৮৮ প্রসেসর।

গিকবেঞ্চ লিস্টিং অনুযায়ী, গ্যালাক্সি জেড ফোল্ড ৩ অ্যান্ড্রয়েড ১১ সফটওয়্যারে রান করবে। এতে ১২ জিবি র‌্যাম থাকবে। গিকবেঞ্চের সিঙ্গেল ও মাল্টি কোর টেস্টে ফোল্ডেবল স্মার্টফোনটি ১১২৪ ও ৩৩৫০ পয়েন্ট স্কোর করেছে।

Samsung Galaxy Z Fold 3 স্পেসিফিকেশন (আনঅফিসিয়াল)

স্যামসাং গ্যালাক্সি জেড ফোল্ড ৩ এর প্রাইমারি (ইন্টারনাল) ডিসপ্লে হিসেবে ৭.৫৫ ইঞ্চির ফোল্ডেবল সুপার অ্যামোলেড প্যানেল থাকবে। এটি ১২০ হার্টজ রিফ্রেশ রেট অফার করবে৷ আবার এতে ১৬ মেগাপিক্সেল ইন-ডিসপ্লে ক্যামেরা দেখা যাবে। অপরদিকে ফোনটি ৬.২ ইঞ্চি সুপার অ্যামোলেড কভার ডিসপ্লে সহ আসবে। এক্সটার্নাল কভার স্ক্রিনে ১০ মেগাপিক্সেল আন্ডার ডিসপ্লে দেখা যেতে পারে।

স্যামসাং গ্যালাক্সি জেড ফোল্ড ৩ এর পিছনে তিনটি ক্যামেরা থাকবে, যার মেইন ক্যামেরা হবে ১২ মেগাপিক্সেলের। ফোনে ৫১২ জিবি পর্যন্ত স্টোরেজ পাওয়া যাবে। গ্যালাক্সি এস সিরিজের ফ্ল্যাগশিপ ফোনের মতো গ্যালাক্সি জেড ফোল্ড ৩ অঞ্চল ভেদে স্ন্যাপড্রাগন ৮৮৮ বা এক্সিনস ২১০০ প্রসেসর সহ লঞ্চ হতে পারে।

3C লিস্টিং অনুযায়ী, Samsung Galaxy Z Fold 3 স্মার্টফোনে ২৫ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং সাপোর্ট থাকবে। এছাড়া ফোনটি ২০৬০ এমএএইচ এবং ২০৭৫ এমএএইচ ব্যাটারি সহ আসবে। অর্থাৎ ডিভাইসটির ব্যাটারি ক্যাপাসিটি হবে ৪,২৭৫ এমএএইচ। কোম্পানির প্রথম ফোল্ডেবল ফোন হিসেবে এতে স্টাইলাস পেন সাপোর্ট করতে পারে। কিন্তু তার জন্য ডেডিকেটেড স্টোরেজ থাকার সম্ভাবনা খুব কম।

হোয়াটসঅ্যাপে খবর পেতে এখানে ক্লিক করুন

সবার আগে খবর পেতে Google News-এ ফলো করুন