ভিডিও গেম হিংসা ছড়ায়, প্রধানমন্ত্রীর মন্তব্যের পর ফের Battlegrounds Mobile India-র ব্যান নিয়ে জল্পনা

pm-modi-says-video-game-spread-violence-battlegrounds-mobile-india-game-ban-in-india
পাবজি মোবাইলের মতই ব্যাটেল গ্রাউন্ডস গেমটি ব্যান হবে কী

দিন কয়েক আগে অ্যান্ড্রয়েড বিটা সংস্করণ মুক্তি পেলেও, নতুন ব্যাটেল-রয়্যাল গেম Battlegrounds Mobile India (BMI)-এর আনুষ্ঠানিক লঞ্চ সম্পর্কে এখনো কোনো তথ্য মেলেনি। কিন্তু মুক্তি সংক্রান্ত দোলাচলের মধ্যেই PUBG Mobile-এর এই বিকল্প জড়িয়ে পড়েছে ডেটা ট্রান্সফার সংক্রান্ত বিতর্কে। অন্যদিকে গেমটি ঘোষণার পর থেকেই ভারতের রাজনীতিবিদরা এটিকে নিষিদ্ধ করার দাবি জানিয়ে আসছেন। সেক্ষেত্রে পাবজি মোবাইলের মতই ব্যাটেল গ্রাউন্ডস গেমটি ব্যান হবে কিনা, সেই জল্পনাকে উস্কে দিয়েছে Toycathon 2021 ইভেন্টেতে করা প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর মন্তব্য।

BMI প্রসঙ্গে ঠিক কী বলেছেন প্রধানমন্ত্রী?

আসলে এই প্রোগ্রামে প্রধানমন্ত্রী মোদী বলেছেন যে, বর্তমানে বাজারে উপলব্ধ বেশির ভাগ অনলাইন বা ডিজিটাল গেমগুলি ভারতীয় মান বা ধারণার ভিত্তিতে তৈরি নয়। এই গেমগুলিকে সাধারণত হিংসার প্রচার করতে দেখা যায় এবং এগুলি মানুষের মধ্যে মানসিক চাপ বৃদ্ধি করে। এই একই কথা বলে একটি টুইটও করেন মোদী। যদিও তাঁর মন্তব্য বা টুইটে, Battlegrounds Mobile India -এর নাম উল্লেখ করে কিছু বলা হয়নি। তবে মনে করা হচ্ছে, প্রধানমন্ত্রীর এই ধরণের ভাবনা গেমটির নির্মাতা Krafton (ক্রাফ্টন)-এর উদ্বেগের কারণ হতে পারে।

ইতিমধ্যেই আমরা দেখেছি যে, হালফিল সময়ে রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব তথা মন্ত্রী-সাংসদরা নতুন ব্যাটেল গ্রাউন্ডস মোবাইল ইন্ডিয়া গেমটির থেকে ভারতীয় ইউজারদের তথ্যের ক্ষতি হওয়ার সম্ভাবনার কথা বলেছেন। গেমটির সাথে চীনের সরাসরি সম্পর্ক আছে এমনটাও দাবি করা হয়েছে। এমনকি দিন তিনেক আগে CAIT-এর সেক্রেটারি জেনারেল প্রবীণ খানদেলওয়াল, আইন ও যোগাযোগ তথা ইলেকট্রনিক্স-তথ্য প্রযুক্তি মন্ত্রী রবি শঙ্কর প্রসাদকে চিঠি দিয়ে এটিকে লঞ্চ না হতে দেওয়ার অনুরোধ করেছেন। অন্যদিকে ক্রাফ্টন, গেমটির মাধ্যমে চীনের বেইজিংয়ের সার্ভার এবং অন্য জায়গায় ডেটা পাঠাচ্ছে বলে অভিযোগ উঠেছে। তাই ক্রাফ্টন ভারতে এত সহজে ব্যবসা করতে পারবে বলে মনে হচ্ছে না।

সত্যি কী লঞ্চের আগে BMI গেমটি ব্যান হতে পারে?

এই প্রশ্নের সংক্ষিপ্ত এবং সরাসরি উত্তর হল না! আসলে দিন কয়েক আগেই তথ্য প্রযুক্তি মন্ত্রক জানিয়েছে যে কোনো গেম বা অ্যাপ্লিকেশন জাতীয় কনটেন্টকে মুক্তির আগে নিষিদ্ধ করা যায় না। তবে লঞ্চের পর সেটি দেশের আইন না মানলে নিষেধাজ্ঞার খাঁড়া নেমে আসতে পারে। অর্থাৎ ব্যাটেল গ্রাউন্ডসের ভবিষ্যৎ নিয়ে ধোঁয়াশা থাকছেই…

হোয়াটসঅ্যাপে খবর পেতে এখানে ক্লিক করুন

গেম খেলতে এখানে ক্লিক করুন

A person who enjoys creating, buying, testing, evaluating and learning about new technology.