বৈদ্যুতিক গাড়ির কারখানা তৈরির জন্য জমি খুঁজছে Ola Electric, উত্তরপ্রদেশ, গুজরাত-সহ কয়েকটি রাজ্যের সঙ্গে চলছে আলোচনা

বৈদ্যুতিক যানবাহনের বাজারে পথ চলতে শুরু করার এক বছরেরও কম সময়ে ভারতের বৃহত্তম ইলেকট্রিক টু-হুইলার প্রস্তুতকারী হিসেবে আত্মপ্রকাশ করেছে ওলা ইলেকট্রিক (Ola Electric)। সংস্থার এই সাফল্য সত্ত্বেও এতটুকু আত্মতুষ্টি গ্রাস করতে পারেনি তাদের। যার প্রকৃষ্ট দৃষ্টান্ত দু’চাকার পর এবার সংস্থার লক্ষ্য ইলেকট্রিক চার চাকার গাড়ি। এর জন্য ওলা এদেশে তাদের দ্বিতীয় কারখানা খোলার পরিকল্পনা করছে। যদিও গত মাসেই সংস্থাটি ঘোষণা করেছিল যে আগামী দু’বছরের মধ্যে অটোনমাস বা স্বয়ংচালিত গাড়ি বাজারে আনতে চলেছে তারা।

ওলার কর্ণধার ভাবিশ আগরওয়াল জানিয়েছিলেন, এদেশে তারা একটি স্বয়ংক্রিয় গাড়ির টেস্টিং শুরু করেছেন। যেটি দু’বছরের মধ্যে আন্তর্জাতিক বাজারে লঞ্চ করা হবে। এদিকে বৈদ্যুতিক গাড়ির কারখানা তৈরীর জন্য ইতিমধ্যেই জমির খোঁজ করা শুরু করেছে সংস্থাটি। যেখানে গাড়ির সাথে ব্যাটারি সেল উৎপাদন করা হবে।

এক রিপোর্টে দাবি করা হয়েছে তাদের ব্যাটারি চালিত গাড়ির কারখানা তামিলনাড়ুতে নাও হতে পারে। যার জন্য একাধিক রাজ্য সরকারের সাথে সংস্থাটি কথাবার্তা চালাচ্ছে। জানা গেছে গাড়ি তৈরির জন্য ওলার ১,০০০ একর জমির প্রয়োজন। যা তামিলনাড়ুর ফিউচারফ্যাক্টরির প্রায় দ্বিগুণ বলা যেতে পারে। এর জন্য ১০,০০০ কোটি টাকা বিনিয়োগের কথা ভাবছে সংস্থা। তামিলনাড়ুর পাশাপাশি এখনো পর্যন্ত উত্তর প্রদেশ, গুজরাত, মহারাষ্ট্র, কর্ণাটক এবং তেলেঙ্গানা সরকারের সাথে কথাবার্তা হয়েছে বলে জানা গেছে।

কোন রাজ্যে ওলার নতুন কারখানার খুঁটি স্থাপন হবে তার চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত আগামী এক মাসের মধ্যে নেওয়া হবে। অন্যদিকে, এর আগে ইলেকট্রিক গাড়ির প্রসঙ্গে বলতে গিয়ে ভাবিশ একটি বৈদ্যুতিক গাড়ির নমুনা মডেলের ছবি প্রকাশ করেছিলেন। যা দেখে অনুমান করা হচ্ছে, সবার প্রথম ওলা একটি ইলেকট্রিক হ্যাচব্যাক মডেল বাজারে আনবে। এটি সাশ্রয়ী মূল্যের হতে পারে। বর্তমানে গাড়ির ডিজাইন তৈরিতে ব্যস্ত তারা। আগামী দু’বছরের মধ্যেই গাড়ির উৎপাদন শুরু হবে।

প্রসঙ্গত, ২০২০-র ডিসেম্বরে তামিলনাড়ুর কৃষ্ণগিরিতে ফিউচারফ্যাক্টরি তৈরি করেছিল ওলা ইলেকট্রিক। যেখানে তাদের S1 Pro  বৈদ্যুতিক স্কুটি তৈরি হয়। এটি আবার বিশ্বের মধ্যে বৃহত্তম ইলেকট্রিক টু-হুইলারের কারখানা। গত বছর ১৫ ডিসেম্বর থেকে বৈদ্যুতিক স্কুটার ডেলিভারি দেওয়া শুরু করে তারা। প্রতি মাসে গড়ে ১০,০০০ ই-স্কুটার বিক্রি করছে ওলা।

সবার আগে খবর পেতে Google News-এ ফলো করুন