Moto E32s বাজেটের মধ্যে ১৬ মেগাপিক্সেল ক্যামেরা ও ৫০০০ এমএএইচ ব্যাটারি সহ লঞ্চ হল, দাম জেনে নিন

ইউরোপের বাজারে মোটো ই৩২এস-এর দাম রাখা হয়েছে ১৪৯ ইউরো (প্রায় ১২,৪০০ টাকা)। হ্যান্ডসেটটি মিস্টি সিলভার এবং স্লেট গ্রে - কালার অপশনগুলিতে বেছে নেওয়া যাবে

চলতি মাসের শুরুর দিকে মোটোরোলা ইউরোপের মার্কেটে কোনো আড়ম্বর ছাড়াই লঞ্চ করে তাদের Moto E32 হ্যান্ডসেটটি। আর এবার, সংস্থা Moto E32s নামে এই ফোনের একটি নতুন ভ্যারিয়েন্ট উন্মোচন করেছে। এই ডিভাইসটি এইচডি+ ডিসপ্লে, ১৬ মেগাপিক্সেলের প্রাইমারি ক্যামেরা, MediaTek Helio G37 চিপসেট এবং ৫,০০০ এমএএইচ ব্যাটারি সহ এসেছে। চলুন এই নতুন মোটোরোলা স্মার্টফোনটির দাম, ফিচার এবং সকল স্পেসিফিকেশনগুলি দেখে নেওয়া যাক।

মোটো ই৩২এস-এর দাম এবং লভ্যতা (Moto E32s Price and Availability)

ইউরোপের বাজারে মোটো ই৩২এস-এর দাম রাখা হয়েছে ১৪৯ ইউরো (প্রায় ১২,৪০০ টাকা)। হ্যান্ডসেটটি মিস্টি সিলভার এবং স্লেট গ্রে – কালার অপশনগুলিতে বেছে নেওয়া যাবে। এই ফোনটি আগামী ২৭ মে ভারতে বাজারে আত্মপ্রকাশ করবে বলে আশা করা হচ্ছে।

মোটো ই৩২এস-এর স্পেসিফিকেশন এবং ফিচার (Moto E32s Specifications and Features)

মোটো ই৩২এস ফোনে ৬.৫ ইঞ্চির পাঞ্চ-হোল ডিসপ্লে রয়েছে, যা ৭২০ x ১,৬০০ পিক্সেলের এইচডি+ রেজোলিউশন এবং ৯০ হার্টজ রিফ্রেশ রেট অফার করে। ডিভাইসটি মিডিয়াটেক হেলিও জি৩৭ চিপসেট দ্বারা চালিত। মোটো ই৩২এস-এ ৩ জিবি / ৪ জিবি র‍্যাম এবং ৩২ জিবি / ৬৪ জিবি ইন-বিল্ট স্টোরেজ পাওয়া যাবে। এই মোটোরোলা ফোনটি অ্যান্ড্রয়েড ১২ অপারেটিং সিস্টেমে রান করে।

ফটোগ্রাফির জন্য, Moto E32s-এর রিয়ার ক্যামেরা সেটআপে ১৬ মেগাপিক্সেলের প্রাইমারি ক্যামেরা, ২ মেগাপিক্সেলের ডেপ্থ সেন্সর এবং ২ মেগাপিক্সেলের ম্যাক্রো ক্যামেরা উপস্থিত রয়েছে। আবার ভিডিও কল এবং সেলফির জন্য ফোনের সামনে ৮ মেগাপিক্সেলের ফ্রন্ট ক্যামেরা বর্তমান। পাওয়ার ব্যাকআপের জন্য, Moto E32s ফোনে শক্তিশালী ৫,০০০ এমএএইচ ব্যাটারি ব্যবহার করা হয়েছে, যা ১৮ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং সাপোর্ট করে। এই সাশ্রয়ী মূল্যের হ্যান্ডসেটটিতে নিরাপত্তার জন্য, সাইড-ফেসিং ফিঙ্গারপ্রিন্ট স্ক্যানার এবং ফেস আনলক সাপোর্ট করে। এছাড়া, Moto E32s মডেলটি ওয়াই-ফাই, ভিওএলটিই, ব্লুটুথ ৫.০ এবং এইপি৬৮ রেটযুক্ত জল ও ধুলো প্রতিরোধী চ্যাসিসের সাথে এসেছে। হ্যান্ডসেটটির পরিমাপ ১৬৩.৯৫ x ৭৪.৯৪ x ৮.৪৯ মিলিমিটার এবং ওজন প্রায় ১৮৫ গ্রাম।

উল্লেখ্য, Motorola Moto E32s-এর স্পেসিফিকেশন এবং ডিজাইন প্রায় Moto E32-এর মতই। শুধুমাত্র লক্ষণীয় পার্থক্য রয়েছে এগুলির চিপসেট বিভাগে। E32 ইউনিসক টি৬০৬ চিপসেট দ্বারা চালিত, আর E32-এ হেলিও জি৩৭ প্রসেসরটি রয়েছে।

স্মার্টফোন, গাড়ি-বাইক সহ প্রযুক্তি দুনিয়ার সব গুরুত্বপূর্ণ খবর সবার আগে পেতে ফলো করুন আমাদের Google News ও Twitter পেজ, সঙ্গে অ্যাপ ডাউনলোড করতে এখানে ক্লিক করুন।