Hop Oxo: একচার্জে ১২৫ কিমি পার, বাজারে আসছে Hero, Honda-দের নতুন প্রতিদ্বন্দ্বী

Hop Oxo মডেলটি প্রায় প্রস্তুত, রোড টেস্টিং ও গুণমান পর্যবেক্ষণ করা চলছে

Hop Oxo electric motorcycle to launch in india soon with 125km range

Lyf ও Leo ইলেকট্রিক স্কুটারের সৌজন্যে অল্প সময়ের মধ্যেই পরিচিত হয়ে উঠেছে Hop Electric Mobility। ইতিমধ্যে জয়পুরের এই ইভি (ইলেকট্রিক ভেহিকেল) স্টার্টআপ সংস্থাটি ব্যাটারি সোয়াপিং এবং চার্জিং স্টেশন লঞ্চ করে ফেলেছে। এবার Oxo বলে একটি ইলেকট্রিক মোটরসাইকেল বাজারে আনার জন্য প্রস্তুতি নিচ্ছে তারা। দিওয়ালির সময় লঞ্চ করা হবে এটি৷

যে দিন হোপ ইলেকট্রিক মোবিলিটির ব্যাটারিচালিত মোটরসাইকেল Oxo লঞ্চ করা হবে, সে দিন থেকেই চালু হবে অগ্রিম বুকিং। সামনের বছর থেকে শুরু হবে ক্রেতাদের কাছে Oxo ইলেকট্রিক মোটরসাইকেল পৌঁছে দেওয়ার কাজ।

সংস্থার সিইও কেতন মেহতা এক সর্বভারতীয় সংবাদ মাধ্যমকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে বলেছেন, “ফেম-২ সাবসিডির সুবিধা থাকবে তাদের ইলেকট্রিক মোটরসাইকেলে। ইতিমধ্যেই মডেলটি প্রায় প্রস্তুত৷ রোড টেস্টিং ও গুণমান পর্যবেক্ষণ করা চলছে। দশেরার সময় একটি ফরমাল লঞ্চ ইভেন্ট আয়োজনের ব্যাপারে ভাবছি আমরা। অক্টোবরের প্রথমে Oxo-র প্রথম লুক সামনে আনা হবে।”

কেতন মেহতা যোগ করে বলেন, “১১০ সিসি থেকে ১২৫ সিসি সেগমেন্টের বাইকগুলি ভারতে সবচেয়ে জনপ্রিয়। লুকস এবং সমস্ত দিক থেকে এই সেগমেন্টে বিকল্প হিসেবে উঠে আসবে হোপ অক্সো। আমরা সত্যিই হোন্ডা শাইন, হিরো স্প্লেন্ডার-এর মতো মেইনস্ট্রিম বাইকের থেকেও ভাল মডেল ক্রেতাদেরকে দিতে চাই।”

একটি নয়, একাধিক বিদ্যুতচালিত মোটরসাইকেলের উপর কাজ করছে হোপ। কিন্তু প্রথমে অক্সো মডেলটি আত্মপ্রকাশ করবে। এটি একচার্জে ১২৫ কিলোমিটারের কাছাকাছি মাইলেজ দেবে বলে মনে করা হচ্ছে। সর্বোচ্চ গতি হতে পারে ৯০-৯৫ কিলোমিটার প্রতি ঘন্টা।

হোয়াটসঅ্যাপে খবর পেতে এখানে ক্লিক করুন

গেম খেলতে এখানে ক্লিক করুন

Shuvro primarily writes about smartphone and automobile industry. He is an assistant editor for techgup. Shuvro has a bachelor degree in English literature. His interest also includes cosmopolitan affairs, scientific discoveries, and quizzing.