১০ হাজার টাকার কমে Redmi, Realme, Infinix, Tecno-র সেরা ফোনগুলি দেখে নিন

হাতে যদি একটি স্মার্টফোন না থাকে, তাহলে গোটা বিশ্ব থেকে নিজেকে বিচ্ছিন্ন মনে হয়। তাই এখন প্রায় প্রত্যেকেই স্মার্টফোন কেনার প্রতি ঝোঁক দেখাচ্ছে। কিন্তু, কেনার ইচ্ছা থাকলেই তো আর কেনা যায় না। ‘বাজেট’ বলেও একটা বিষয় আছে। এক্ষেত্রে, একটি নতুন স্মার্টফোন কেনার জন্য আপনারা যারা ১০,০০০ টাকার কম বাজেট নির্ধারণ করেছেন। তাদের আজ আমরা ভারতের বাজারে বিদ্যমান এমন ৫টি সেরা হ্যান্ডসেটের খোঁজ দেব, যেগুলি দামে কম হওয়ার পাশাপাশি ফিচারের নিরিখেও সমৃদ্ধ। জানিয়ে রাখি এই তালিকায় ২০২১ সালে লঞ্চ হওয়া স্মার্টফোন যেমন সামিল আছে, তেমনি চলতি বছরে আত্মপ্রকাশ করা Infinix ও Realme ব্র্যান্ডের লেটেস্ট মডেলও অন্তর্ভুক্ত আছে। এগুলির মূল্য শুরু হচ্ছে ৭,৪৯৯ টাকা থেকে। চলুন তাহলে ১০,০০০ টাকার নিচে উপলব্ধ ৫টি সেরা স্মার্টফোনের দাম ও ফিচার সহ তালিকা দেখে নেওয়া যাক এবার।

১০,০০০ টাকার নিচে উপলব্ধ সেরা ৫টি স্মার্টফোনের তালিকা

Infinix Smart 6: ৭,৪৯৯ টাকা

গত এপ্রিল মাসে লঞ্চ হওয়া ইনফিনিক্স স্মার্ট ৬ ফোনে একটি ৬.৮২ ইঞ্চির এইচডি প্লাস LCD ওয়াটারড্রপ নচ ডিসপ্লে প্যানেল আছে, যা ৫০০ নিট পিক ব্রাইটনেস অফার করে। ফোনটি মিডিয়াটেক হেলিও এ২২ প্রসেসর সহ এসেছে। আর অপারেটিং সিস্টেম হিসাবে এতে অ্যান্ড্রয়েড ১১ গো এডিশন পাওয়া যাবে। আবার ইনফিনিক্সের নিজস্ব এক্সওএস ৭.৬ সংস্করণ প্রি-ইনস্টলড রয়েছে এতে। উক্ত হ্যান্ডসেটে, ইউজাররা অতিরিক্ত ২ জিবি এক্সটেন্ডেড র‍্যামের সুবিধা পেয়ে যাবেন। তদুপরি ফটোগ্রাফির জন্য ইনফিনিক্স স্মার্ট ৬ ফোনের রিয়ার প্যানেলে দু’টি ক্যামেরা উপস্থিত – ৮ মেগাপিক্সেল প্রাইমারি সেন্সর এবং একটি ডেপ্থ সেন্সর। সেলফি ও ভিডিও কলিংয়ের জন্য এতে LED ফ্ল্যাশ-সহ ৫ মেগাপিক্সেলের ফ্রন্ট-ফেসিং ক্যামেরা রয়েছে। আর সিকিউরিটির জন্য ফোনটির ব্যাক প্যানেলে ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর দেওয়া হয়েছে।

Techno Spark 7: ৮,২০১ টাকা

গত বছর আগত টেকনো স্পার্ক ৭ ফোনে আছে একটি ৬.৫৩ ইঞ্চির এইচডি প্লাস ডট-নচ ডিসপ্লে। এতে মিডিয়াটেক হেলিও এ২৫ প্রসেসর ব্যবহার করা হয়েছে। উক্ত ফোনটি অ্যান্ড্রয়েড ১১ ভিত্তিক হাইওস ৭.৫ কাস্টম ওস দ্বারা চালিত। ক্যামেরা ফ্রন্টের ক্ষেত্রে, টেকনোর এই হ্যান্ডসেটের পিছনে কোয়াড ফ্ল্যাশ ও ১৬ মেগাপিক্সেল প্রাইমারি সেন্সর সহ ডুয়েল ক্যামেরা সেটআপ বর্তমান। আবার সেলফি ও ভিডিও কলের জন্য ফোনটির সামনে থাকছে ডুয়েল ফ্ল্যাশ সহ ৮ মেগাপিক্সেলের ফ্রন্ট-ফেসিং ক্যামেরা। পাওয়ার ব্যাকআপের জন্য, ডুয়েল সিমের এই ফোনে ১০ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং টেকনোলজির সমর্থন সহ ৬,০০০ এমএএইচ ক্যাপাসিটির ব্যাটারি উপস্থিত। আর সিকিউরিটির জন্য থাকছে ফেস আনলক ও ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর।

Xiaomi Redmi 9 Activ: ৯,৪৯৯ টাকা

২০২১ সালে আত্মপ্রকাশ করা রেডমি ৯ অ্যাক্টিভ স্মার্টফোনে, ২০:৯ এসপেক্ট রেশিও যুক্ত একটি ৬.৫৩ ইঞ্চির এইচডি প্লাস IPS LCD ডিসপ্লে দেখা যাবে। ভালো পারফরম্যান্স অফারের জন্য এটিকে অক্টা-কোর মিডিয়াটেক হেলিও জি৩৫ প্রসেসরের সাথে নিয়ে আসা হয়েছে। উক্ত হ্যান্ডসেটটি অ্যান্ড্রয়েড ১১ ভিত্তিক এমআইইউআই ১২ (MIUI 12) কাস্টম ওএস স্কিনে রান করে। তদুপরি রেডমির এই স্মার্টফোনে ডুয়েল-রিয়ার ক্যামেরা বর্তমান। এই ক্যামেরাগুলি হল, ১৩ মেগাপিক্সেল (অ্যাপারচার : এফ/২.২) প্রাইমারি সেন্সর ও ২ মেগাপিক্সেল (অ্যাপারচার : এফ/২.২) ডেপ্থ সেন্সর। একই সাথে, সেলফি ও ভিডিও কলিংয়ের জন্য রয়েছে ৫ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরা। আবার সিকিউরিটির জন্য ফোনের ব্যাক প্যানেলে দেওয়া হয়েছে ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর। পাওয়ার ব্যাকআপের জন্য এই হ্যান্ডসেটে, ৫,০০০ এমএএইচ ক্যাপাসিটির ব্যাটারি আছে, যা ফুল চার্জে ৩৫ ঘন্টা পর্যন্ত পাওয়ার ব্যাকআপ ও ৩০ ঘন্টা পর্যন্ত ভিডিও প্লেব্যাক টাইম অফার করবে।

Realme C31: ৯,২৯৯ টাকা

৩১শে মার্চে ভারতের বাজারে লঞ্চ হয়েছিল রিয়েলমি সি৩১। এই ডুয়েল সিমের স্মার্টফোনে দেখা যাবে একটি ৬.৫ ইঞ্চির এইচডি প্লাস (৭২০x১৬০০ পিক্সেল) LCD ডিসপ্লে, যার স্ক্রিন-টু-বডি রেশিও ৮৮.৭%। আর এই ডিসপ্লের ডিজাইন ওয়াটার ড্রপ নচ স্টাইল, যার কাট আউটের মধ্যে ৫ মেগাপিক্সেলের ফ্রন্ট ক্যামেরা অবস্থিত। আবার রিয়েলমি সি৩১ ফোনটির পিছনে, এফ/২.২ অ্যাপারচার ও ৪এক্স ডিজিটাল জুম সাপোর্ট সহ ১৩ মেগাপিক্সেল প্রাইমারি সেন্সর, ২ মেগাপিক্সেল ম্যাক্রো সেন্সর এবং একটি ব্ল্যাক অ্যান্ড হোয়াইট সেন্সর সহ ট্রিপল ক্যামেরা ইউনিট বিদ্যমান। অভ্যন্তরীন ফিচারের কথা বললে, আলোচ্য ফোনে ইউনিসক টি৬১২ প্রসেসর ব্যবহার করা হয়েছে। পাওয়ার ব্যাকআপের জন্য এতে ১০ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং সাপোর্ট সহ ৫,০০০ এমএএইচ ক্যাপাসিটির ব্যাটারি আছে, যা ৪৫ দিন পর্যন্ত স্ট্যান্ডবাই টাইম অফার করবে বলে সংস্থার দাবি। আর নিরাপত্তার জন্য ডিভাইসে সাইড-মাউন্টেড ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর উপলব্ধ।

Xiaomi Redmi 10A: ৮,৪৯৯ টাকা

রেডমি ১০এ ফোনে আছে ৬.৫৩ ইঞ্চি এইচডি প্লাস (১,৬০০x ৭২০ পিক্সেল) ওয়াটার-ড্রপ নচ ডিসপ্লে। এই ডিসপ্লেটি ৪০০ নিট পিক ব্রাইটনেস এবং ২০:৯ এসপেক্ট রেশিও অফার করবে। নিরাপত্তার জন্য ডুয়েল-সিমের এই ফোনে রিয়ার-মাউন্টেড ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর দেওয়া হয়েছে। অভ্যন্তরীণ স্পেসিফিকেশনের কথা বললে, রেডমি ১০এ ফোনটি ১২এনএম প্রসেসিং নোড ভিত্তিক মিডিয়াটেক হেলিও জি ২৫ প্রসেসর সহ এসেছে। এটি অ্যান্ড্রয়েড ভিত্তিক এআইইউআই ১২.৫ কাস্টম স্কিনে রান করবে। অভ্যন্তরীণ স্পেসিফিকেশনের কথা বললে, রেডমি ১০এ ফোনটি ১২এনএম প্রসেসিং নোড ভিত্তিক মিডিয়াটেক হেলিও জি ২৫ প্রসেসর সহ এসেছে। এটি অ্যান্ড্রয়েড ভিত্তিক এআইইউআই ১২.৫ কাস্টম স্কিনে রান করবে। পাওয়ায় ব্যাকআপের জন্য রেডমি ১০এ ফোনে ৫,০০০ এমএএইচ ক্যাপাসিটির ব্যাটারি ব্যবহার করা হয়েছে, যা ১০ ওয়াট চার্জিং সাপোর্ট করে।

সবার আগে খবর পেতে Google News-এ ফলো করুন