দাম ১০ হাজার টাকার কম, 5000mAh ব্যাটারির সেরা ৫টি স্মার্টফোন দেখে নিন

১০ হাজার টাকার কমে ৫টি সেরা বড় ব্যাটারির সাথে আসা স্মার্টফোনের তালিকা দেখে নিন

best-5-smartphone-5000mah-battery-under-rs-10000

একটি স্মার্টফোনের সক্রিয়তা সম্পূর্ণ রূপেই তার ব্যাটারির উপর নির্ভরশীল। ফলে মুঠোবন্দি মোবাইলটি যাতে দীর্ঘক্ষণ চলমান থাকে, তার জন্য বহু মানুষই বড় ব্যাটারি যুক্ত স্মার্টফোন কেনার প্রতি আগ্রহ দেখান। কিন্তু একটি শক্তিশালী ব্যাটারির স্মার্টফোন কেনার ক্ষেত্রে অনেকেরই বাজেট নিয়ে চিন্তা থাকে। তবে বলে রাখি, ভারতের বাজারে এমন একাধিক বাজেট-রেঞ্জের স্মার্টফোন বিদ্যমান আছে, যেগুলিতে আপনারা ৫,০০০ এমএএইচ ক্যাপাসিটির বড় তথা উন্নত কর্মক্ষমতা যুক্ত ব্যাটারি পেয়ে যাবেন। এই তালিকায় – Redmi, Infinix, Realme -এর মতো নামজাদা ব্র্যান্ডের স্মার্টফোন সামিল আছে। আর দামের নিরিখে উল্লেখিত প্রত্যেকটি সংস্থার স্মার্টফোনগুলিকে ১০,০০০ টাকারও কম দামে পকেটস্থ করে নিতে পারবেন আপনারা। চলুন তাহলে বাজেট-রেঞ্জে উপলব্ধ ৫টি সেরা বড় ব্যাটারির সাথে আসা স্মার্টফোনের তালিকা দেখে নেওয়া যাক।

১০,০০০ টাকার নিচে উপলব্ধ ৫টি সেরা বাজেট স্মার্টফোনের তালিকা

Xiaomi Redmi 10A : ৮,৪৯৯ টাকা

রেডমি ১০এ ফোনে আছে ৬.৫৩ ইঞ্চি এইচডি প্লাস (১,৬০০x ৭২০ পিক্সেল) ওয়াটার-ড্রপ নচ ডিসপ্লে। এই ডিসপ্লেটি ৪০০ নিট পিক ব্রাইটনেস এবং ২০:৯ এসপেক্ট রেশিও অফার করবে। নিরাপত্তার জন্য ডুয়েল-সিমের এই ফোনে রিয়ার-মাউন্টেড ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর দেওয়া হয়েছে। এনটি ১২এনএম প্রসেসিং নোড ভিত্তিক মিডিয়াটেক হেলিও জি২৫ প্রসেসর সহ এসেছে। ফোনটি অ্যান্ড্রয়েড ভিত্তিক এআইইউআই ১২.৫ কাস্টম স্কিনে রান করবে। ফটোগ্রাফির জন্য, রেডমি ১০এ ফোনের রিয়ার প্যানেলে ১৩ মেগাপিক্সেলের একক ক্যামেরা উপস্থিত। এই ক্যামেরায় পোট্রেট মোড ফিচার উপলব্ধ থাকছে। আর সেলফি ও ভিডিও কলিংয়ের জন্য এই ফোনে দেওয়া হয়েছে ৫ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরা। আর পাওয়ায় ব্যাকআপের জন্য রেডমি ১০এ ফোনে ৫,০০০ এমএএইচ ক্যাপাসিটির ব্যাটারি ব্যবহার করা হয়েছে, যা ১০ ওয়াট চার্জিং সাপোর্ট করে।

Redmi 9 : ৮,৯৯৯ টাকা

অ্যান্ড্রয়েড ১০ ভিত্তিক এমআইইউআই ১২ কাস্টমওস চালিত রেডমি ৯ ফোনে আছে একটি ৬.৫৩ ইঞ্চির এইচডি প্লাস আইপিএস ডট ভিউ ডিসপ্লে। উন্নত পারফরম্যান্সের জন্য এতে অক্টা-কোর মিডিয়াটেক হেলিও জি৩৫ প্রসেসর ব্যবহার করা হয়েছে। ক্যামেরা ফ্রন্টের কথা বললে, রেডমি ৯ ফোনে ডুয়েল রিয়ার ক্যামেরা সেটআপ বর্তমান। এই ক্যামেরাগুলি হল, ১৩ মেগাপিক্সেল প্রাইমারি সেন্সর এবং ২ মেগাপিক্সেল সেকেন্ডারি সেন্সর। সেলফি ও ভিডিও কলের জন্য এতে ৫ মেগাপিক্সেল AI ফ্রন্ট ক্যামেরা উপস্থিত। তদুপরি উক্ত ফোনটিকে হাইপারইঞ্জিন গেম টেকনোলজি সহ নিয়ে আসা হয়েছে। আর পাওয়ার ব্যাকআপের জন্য এই হ্যান্ডসেটে ১০ ওয়াট ফাস্ট চার্জিং সাপোর্ট যুক্ত ৫,০০০ এমএএইচ ক্যাপাসিটির ব্যাটারি আছে।

Infinix Hot 11 2022 : ৯,৯৯৯ টাকা

ইনফিনিক্স হট ১১ ২০২২ ফোনে, একটি ৬.৭ ইঞ্চির ফুল এইচডি প্লাস (১০৮০ x ২৪০০ পিক্সেল) ডিসপ্লে‌ দেওয়া হয়েছে, যা ২০:৫ এসপেক্ট রেশিও, ৫৫০ নিট পিক ব্রাইটনেস, ৮৯.৫% স্ক্রিন-টু-বডি রেশিও অফার করে। মাল্টিটাস্কিং এবং উন্নত পারফরম্যান্সের জন্য ফোনটি ইউনিসক টি৭০০ প্রসেসর সহ এসেছে। ডুয়েল সিমের এই হ্যান্ডসেটটি অ্যান্ড্রয়েড ১১ ভিত্তিক এক্সওএস ৭.৬ কাস্টম স্কিনে রান করে। ফটোগ্রাফির জন্য ইনফিনিক্সের এই ফোনে ডুয়েল রিয়ার ক্যামেরা সেটআপ বর্তমান। এই ক্যামেরাগুলি হল এফ/২.০ অ্যাপারচার সহ ১৩ মেগাপিক্সেল প্রাইমারি সেন্সর ও ২ মেগাপিক্সেলের ডেপ্থ সেন্সর। আর ডিভাইসের ডিসপ্লের উপরিভাগে থাকা পাঞ্চ-হোল কাটআউটের মধ্যে এফ/২.০ অ্যাপারচার সহ ৮ মেগাপিক্সেল ফ্রন্ট ক্যামেরা উপস্থিত। পাওয়ার ব্যাকআপের জন্য আলোচ্য ফোনে ৫,০০০ এমএএইচ ক্যাপাসিটির ব্যাটারি দেওয়া হয়েছে, যা ১০ওয়াট ফাস্ট চার্জিং সাপোর্ট করে। আর নিরাপত্তার জন্য ফোনে সাইড মাউন্টেড ফিঙ্গারপ্রিন্ট সেন্সর রয়েছে।

Realme C11 : ৭,৫৪১ টাকা

অ্যান্ড্রয়েড ১১ চালিত রিয়েলমি সি১১ ফোনে একটি ৬.৫ ইঞ্চির এইচডি প্লাস (৭২০x১৬০০ পিক্সেল) LCD ডিসপ্লে দেওয়া হয়েছে। উক্ত হ্যান্ডসেটটি অক্টা-কোর ইউনিসক এসসি৯৮৬৩ প্রসেসর সহ এসেছে। ক্যামেরা ফ্রন্টের কথা বললে, ফোনে ৮ মেগাপিক্সেল রিয়ার সেন্সর বর্তমান। এই ব্যাক ক্যামেরায় অটোফোকাস, পোট্রেট মোড, বিউটি মোড, ফেস রিকগনিশন, ফিল্টার, ৪x ডিজিটাল জুম, ৩০এফপিএসে ভিডিও শ্যুটিং সহ নানাবিধ ফিচার সাপোর্ট করে। আবার ডিসপ্লের টিয়ারড্রপ নচের মধ্যে দেখা যাবে এফ/২.২ অ্যাপারচার সহ ৫ মেগাপিক্সেলের সেলফি ক্যামেরা। রিয়েলমির এই ফোনে ৫,০০০ এমএএইচ ক্যাপাসিটির ব্যাটারি আছে, যা ১০ওয়াট ফাস্ট চার্জিং টেকনোলজি সমর্থন করে।

Reame Narzo 50i : ৮,৯৯৯ টাকা

রিয়েলমি নারজো ৫০আই ফোনে রয়েছে একটি ৬.৫ ইঞ্চি এইচডি প্লাস ওয়াটার ড্রপ নচ ডিসপ্লে, যা ৮৮.৭ % স্ক্রিন-টু-বডি রেশিও এবং ৪০০ নিট পিক ব্রাইটনেস সাপোর্ট করে। উক্ত ফোনে ১.৬ গিগাহার্টজ ক্লক রেটের অক্টা-কোর ইউনিসক ৯৮৬৩ প্রসেসর ব্যবহার করা হয়েছে। আবার অপারেটিং সিস্টেম হিসেবে এটি অ্যান্ড্রয়েড ১১ ভিত্তিক রিয়েলমি ইউআই গো ভার্সনে চলবে। ক্যামেরা ফ্রন্টের কথা বলল, নারজো সিরিজের এই ফোনে, ৮ মেগাপিক্সেল এআই রিয়ার ক্যামেরা এবং ৫ মেগাপিক্সেল এআই সেলফি ক্যামেরা‌ দেওয়া হয়েছে। যার মধ্যে রিয়ার ক্যামেরাটি ৩০ এফপিএস (Frame Per Second) রেটে ১০৮০পিক্সেল ভিডিও রেকর্ড করতে সক্ষম। সিকিউরিটির জন্য ফোনে ফেস আনলক ফিচার বিদ্যমান রয়েছে। আর পাওয়ার ব্যাকআপের জন্য রিয়েলমি নারজো ৫০আই ফোনে ৫,০০০ এমএএইচ ক্যাপাসিটির ব্যাটারি আছে, যা ৪৩ দিনের স্ট্যান্ডবাই টাইম অফার করবে। প্রসঙ্গত এতে ইউজাররা সুপার পাওয়ার সেভিং মোডও পেয়ে যাবেন।

গেম খেলতে এখানে ক্লিক করুন

শুভেচ্ছা বহুমুখী প্রতিভার অধিকারী। তিনি একদিকে যেমন ফটোগ্রাফার, তেমনি পাশাপাশি লেখিকাও। এছাড়াও তার শখের মধ্যে আছে বই পড়া, গান গাওয়া, ছবি আঁকা এবং ওয়েব ডিজাইন। শুভেচ্ছা আমাদের টেকগাপ পরিবারের একজন নতুন সদস্য।