Hindustan Motors: 2023-এ ইলেকট্রিক স্কুটার ও বাইক বাজারে আনতে পারে দেশের প্রাচীনতম গাড়ি সংস্থা

‘আইকনিক’ অ্যাম্বাসেডরের পর এককালের বহুল জনপ্রিয় কন্টেসা (Contessa) গাড়ির ব্র্যান্ড বিক্রি করার জন্য সম্প্রতি সংবাদ শিরোনামে এসেছিল সি কে বিড়লা গোষ্ঠীর অধীনস্থ হিন্দুস্তান মোটরস (Hindustan Motors) বা হিন্দমোটর। সে খবরের রেশ না কাটতেই সংস্থাটি আগামী বছর ইলেকট্রিক টু-হুইলার লঞ্চের পরিকল্পনা জানাল। এক ইউরোপীয় প্রতিষ্ঠানের সাথে ‘জয়েন্ট ভেঞ্চার’ (JV) বা যৌথ সংস্থা গঠন করে তৈরি হবে সেটি। এমনকি পরবর্তীতে চার চাকা বৈদ্যুতিক গাড়ি আনা হতে পারে বলে খবর। ব্যাটারিচালিত মডেলের বাণিজ্যিক উৎপাদন শুরু হলে ৪০০ জন কর্মী নিয়োগ করবে হিন্দমোটর।

বর্তমানে দুটি সংস্থাই নিজেদের আর্থিক বিষয়গুলির উপর মনোনিবেশ করেছে। জুলাই মাস পড়তেই শুরু হয়েছে এই কাজ। এতে লাগতে পারে দু’মাস। অতঃপর যৌথ উদ্যোগের প্রযুক্তিগত দিকগুলি খতিয়ে দেখা হবে। তাতে আরও একমাস সময় লাগবে বলে সংবাদ সংস্থা পিটিআই-কে জানিয়েছেন দেশের প্রাচীনতম গাড়ি সংস্থা হিন্দুস্তান মোটরের ডিরেক্টর উত্তম বোস।

অর্থ জোগাড়ের কাজ মিটমাট হলে, সংস্থাদ্বয় বিনিয়োগের খুঁটিনাটি সম্পর্কে সিদ্ধান্ত নেবে এবং নতুন একটি কোম্পানি গঠন করা হবে। যা ২০২৩-এর ১৫ ফেব্রুয়ারির মধ্যে সমাপ্ত হয়ে যাবে বলে আশা করা যায়। এই জয়েন্ট ভেঞ্চার একবার আনুষ্ঠানিকভাবে গঠিত হয়ে গেলে, পরবর্তী ছয় মাস প্রকল্পটি পরীক্ষা করে দেখা হবে। টু-হুইলারটি ২০২৩-২৪ অর্থবর্ষের শেষার্ধে বাজারে আসবে। এই প্রসঙ্গে উত্তম বোস বলেন, “দু’বছর ধরে দু’চাকার বৈদ্যুতিক গাড়ি প্রকল্পটি বাণিজ্যিকরণের পর চার চাকার বৈদ্যুতিক গাড়ি তৈরির সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।”

এদিকে উত্তরপাড়ার হিন্দমোটরের কারখানার পুনর্নবীকরণের প্রয়োজন। কিছু নিয়ন্ত্রণ ব্যবস্থা, বৈদ্যুতিন যন্ত্রাংশ এবং সফটওয়্যারের আধুনিকীকরণের দরকার। অ্যাম্বাসেডরের চাহিদা পতনের কারণে ২০১৪ সালে কারখানার ঝাঁপ বন্ধ করে দেওয়া হয়েছিল। অ্যাম্বাসেডরের ব্র্যান্ডটি ৮০ কোটি টাকায় ফরাসি গাড়ি সংস্থা পিয়োজো-র কাছে বিক্রি করে দেওয়া হয়। পরবর্তীতে পশ্চিমবঙ্গ সরকারের অনুমতি পেয়ে উত্তরপাড়া কারখানার ৩১৪ একর জমি বিক্রি করে দেয় হিন্দুস্তান মোটরস। বোস জানিয়েছেন, বর্তমানে হিন্দুস্তান মোটরস মুনাফার মুখ দেখতে শুরু করেছে, এবং তাদের সংস্থা সম্পূর্ণ দেনার দায় মুক্ত।

স্মার্টফোন, গাড়ি-বাইক সহ প্রযুক্তি দুনিয়ার সব গুরুত্বপূর্ণ খবর সবার আগে পেতে ফলো করুন আমাদের Google News ও Twitter পেজ, সঙ্গে অ্যাপ ডাউনলোড করতে এখানে ক্লিক করুন।